বিশ্বনাথ পৌরসভার ভারপ্রাপ্ত মেয়র রফিক

post-title

ফাইল ছবি

সিলেটের বিশ্বনাথ পৌরসভার মেয়র মুহিবুর রহমানের বিরুদ্ধে আনা কাউন্সিলরদের নানান অনিয়ম-দূর্নীতির অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় তাকে (মুহিব) সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২৭ জুন) স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের স্থানীয় সরকার বিভাগের (পৌর-২ শাখা) উপসচিব মো.আব্দুর রহমান স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে ওই আদেশ জারি করা হয়েছে।

একইদিন উপসচিব মো.আব্দুর রহমান স্বাক্ষরিত পৃথক আরেকটি প্রজ্ঞাপনে বিশ্বনাথ পৌরসভার মেয়র মুহিবুর রহমানকে সায়য়িক বরখাস্ত করায় এবং উক্ত পৌরসভার মেয়র পদ হতে অপসারণের কার্যক্রম শুরু করায় স্থানীয় সরকার (পৌরসভা) আইন, ২০০৯ এর ধারা ৪০(৩) অনুযায়ী পৌরসভার প্যালন মেয়র-১ রফিক মিয়া ওরফে রফিক হাসানকে প্রশাসনিক ও দাপ্তরিক কাজের সুবিধার্থে পৌরসভার মেয়রের আর্থিক ক্ষমতা অর্পণ করা হয়।

বিশ্বনাথ পৌরসভার প্যানেল মেয়র-১ রফিক মিয়া ওরফে রফিক হাসান বলেন, আল্লাহর রহমতে সত্যের জয় হয়েছে। এখন পৌরবাসীকে সাথে নিয়ে সততা ও নিষ্ঠার সাথে দায়িত্ব পালন করে পৌরবাসীকে কাঙ্খিত উন্নয়ন উপহার দেওয়ার লক্ষ্যে কাজ করে যাব। তবে সবার আগে পৌরসভার কার্যালয় মুহিবুর রহমানের বাসা থেকে আসল ঠিকানায় আনতে হবে ও সকল ফাইলপত্র বুঝে পেতে হবে আমাদেরকে। আর এজন্য প্রশাসন’সহ সরকারের সার্বিক সহযোগীতা ও সুদৃষ্টি কামনা করছি।

বিশ্বনাথ পৌরসভার মেয়র মুহিবুর রহমান সাময়িক বরখাস্ত হওয়ার ও প্যানেল মেয়র-১ রফিক হাসান ভারপ্রাপ্ত মেয়রের দায়িত্ব পাওয়ার সত্যতা স্বীকার করে বিশ্বনাথ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শাহিনা আক্তার বলেন, মন্ত্রণালয় থেকে দুটি বিষয়ের দুটি পৃথক প্রজ্ঞাপন পেয়েছি।

এসএ/সিলেট